তিতাস উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যানকে অপহরনের অভিযোগ

  • আপডেট টাইম : শনিবার, ২৮ জুলাই, ২০১৮
  • ৩৭৭ বার পঠিত

আলোকিত খবর ডটকম :কুমিল্লার তিতাস উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান পারভেজ হোসেন সরকারকে তুলে নেয়ার অভিযোগ করেছে তার পরিবার। শুক্রবার জুমার নামাজের পর রাজধানীর লালমাটিয়ায় তার বাসায় সামনে থেকে কে বা কারা তাকে তুলে নিয়ে যায়।

পরিবারের পক্ষ থেকে এই অভিযোগ পাবার পর বিষয়টির তদন্ত শুরু করেছে ঢাকা মহানগর পুলিশের তেজগাঁও বিভাগের মোহাম্মদপুর থানা পুলিশ।

কুমিল্লা উত্তর আওয়ামী লীগের সভাপতি পারভেজ সরকার আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কুমিল্লা-২ আসন (তিতাস-হোমনা) থেকে দলের মনোনয়নপ্রত্যাশী ছিলেন।

পারভেজ হোসেনের খালাতো ভাই ফাহাদ সংবাদ মাধ্যমকে জানান, লালমাটিয়া সি ব্লকের ৩০ নং নিজ বাসার সামনে কালো জিপ গাড়ি দাঁড়ানো ছিল। চারজন লোক তাকে ফলো করছিল। পারভেজ ভাই লালমাটিয়ার মিনার মসজিদে নামাজ পড়তে গিয়েছিলেন। নামাজ শেষে বাসায় ঢোকার সময় ওই চারজনের একজন তার সঙ্গে হ্যান্ডসেকও করেন। এরপর টান দিয়ে গাড়িতে উঠিয়ে নিয়ে চলে যায়। আমরা বিষয়টি মোহাম্মদপুর থানা ও ডিএমপির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের জানিয়েছি।

এ ব্যাপারে মোহাম্মদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জামাল উদ্দিন মীর সংবাদ মাধ্যমকে বলেন, কে বা কারা কুমিল্লার তিতাস উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান পারভেজ হোসেন সরকারকে তুলে নিয়ে গেছে। পরিবারের অভিযোগ লালমাটিয়ার সি ব্লকে জুমা নামাজের পর তার বাসার সামনে থেকে পাজেরো গাড়িতে তাকে তুলে নেয়া হয়। ঠিক কারা তুলে নিয়েছে তা স্পষ্ট নয়, আমরা বিষয়টি দেখছি।
শোভন নামে এক প্রত্যক্ষদর্শী জানান, পারভেজ জুমার নামাজ পড়ে সবেমাত্র বের হন। তার সঙ্গে কয়েকজন ব্যক্তিও ছিল। কিন্তু তিনি কিছুটা এগিয়ে যান (বাসার সামনে)। এ সময় সি ব্লকের রাস্তায় হঠাৎ একটি পাজেরো গাড়ি আসে। তাতে থাকা কয়েকজন যুবক তাকে (পারভেজকে) জোরপূর্বক তুলে নিয়ে যায়। এ দৃশ্য দেখে উপস্থিত মুসল্লিরা হতভম্ব হয়ে যান। সূত্র : এবিনিউজ

Facebook Comments

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..