টুঙ্গিপাড়ার মেজবানে থাকছে ৪০ হাজার মানুষের খাওয়ার ব্যবস্থা

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ১৫ আগস্ট, ২০১৯

জাতীয় শোক দিবসে এবারও টুঙ্গিপাড়ায় থাকছে চট্টগ্রামের ঐতিহ্যবাহী মেজবান।জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪তম শাহাদৎবার্ষিকীতে এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেলের তত্বাবধানে এবারের মেজবান অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

এবারও টুঙ্গিপাড়ার দু’টি স্থানে মেজবানির আয়োজন থাকছে।। মেজবানে খাওয়ানো হবে ৪০ হাজারেরও বেশি মানুষকে। শেখ মুজিবুর রহমান বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ মাঠে হবে মূল আয়োজন। এখানে প্রায় ৩০ হাজার লোকের খাওয়ার আয়োজন করা হবে বলে জানা গেছে।

এ ছাড়া পার্শ্ববর্তী বালিয়াডাংগা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে থাকবে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের জন্য আয়োজন। সেখানেও প্রায় ১০ হাজার লোকের খাওয়ার ব্যবস্থা থাকবে। ইতোমধ্যে ডেকোরেশনের লোকজন প্যান্ডেল তৈরির কাজ শেষ করেছে। চলছে শেষ পর্যায়ের কাজ।

জানা যায়, এ মেজবানে প্রয়াত এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরীর স্ত্রী চট্টগ্রাম মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হাসিনা মহিউদ্দিন ও পরিবারের সদস্যরা ছাড়াও তার বড় ছেলে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেলের নেতৃত্বে কয়েকশ নেতাকর্মীর একটি প্রতিনিধিদল টুঙ্গিপাড়া আসবেন।

ইতোমধ্যে গোপালগঞ্জের জেলা প্রশাসক শাহিদা সুলতানা, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আসলাম খান, উপজেলা চেয়ারম্যান সোলায়মান বিশ্বাস ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নকিব হোসেন তরফদার মেজবানস্থল পরিদর্শন করেছেন। প্রতি বছরের মতো যুবলীগ, শ্রমিকলীগ, ছাত্রলীগকর্মীরা স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে ওই মেজবানে কাজ করবেন। মেজবানির আনুষাঙ্গিক প্রস্তুতি শেষ পর্যায়ে।

ফাউন্ডেশনের সেক্রেটারি প্রয়াত এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরীর ছোট ছেলে বোরহানুল হাসান চৌধুরী সালেহীন এ মেজবান তত্ত্বাবধানের দায়িত্বে রয়েছেন।

২৬ বছরের এ ঐহিত্যবাহী জাতীয় শোক দিবসে মেজবানের আয়োজন হতো চট্টগ্রাম আওয়ামী লীগের প্রয়াত সভাপতি এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরীর নেতৃত্বে।

Facebook Comments

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..