লাল খাবারের যত উপকার

  • আপডেট টাইম : রবিবার, ১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

টমেটো, চেরি ফল, আপেল, পেঁয়াজ, স্ট্রবেরি, বেদানা, লাল-মরিচ, লাল রংয়ের বীজজাতীয় খাবার, তরমুজ, লাল কপি, লাল ক্যাপসিকাম, লাল শাক ইত্যাদি আরও অনেক ফল ও সবজি পাওয়া যায় বাজারে যাদের রং গাঢ়। রংয়ের মিলের কারণে সবগুলোতেই কিছু পুষ্টিকর উপাদান থাকে বিভিন্ন মাত্রায়। লাল রংয়ের ফল ও সবজি বেশি খাওয়া কারণে কী রকম স্বাস্থ্যগত উপকার পাওয়া যেতে পারে তা জানানো হল পুষ্টিবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদন অবলম্বনে।
অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট: ‘অ্যান্থোসায়ানিন’ নামক ‘অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট’ মেলে লাল রংয়ের খাবারে, যার আছে শক্তিশালী প্রদাহনাষক ক্ষমতা। রক্তসঞ্চালনকারী নালী ও হাড়ের জোড়গুলোর জন্য অত্যন্ত উপকারী। এছাড়াও লাল রংয়ের ফল ও সবজিতে মেলে ‘লাইকোপেন’, যা আরেকটি ‘অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট’ এবং খাবারের রং লাল হওয়ার কারণ। ক্যান্সারের ঝুঁকি কমাতে এই ‘অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট’ কার্যকর।
পটাশিয়াম: সুস্থ হৃদযন্ত্র আর নিয়ন্ত্রিত রক্তচাপ পাওয়ার ক্ষেত্রে একটি গুরুত্বপূর্ণ উপাদান পটাশিয়াম। আর লাল রংয়ের ফল ও সবজিতে এই খনিজ উপাদান থাকে প্রচুর পরিমাণে।
ভিটামিন: ভিটামিন এ এবং সি’য়ের চাহিদা পূরণে মাধ্যমে ক্যান্সারের ঝুঁকি কমায় লাল রংয়ের ফল ও সবজি। হৃদরোগ ও বাতের ঝুঁকি এড়াতেও এই ভিটামিন জরুরি। এছাড়াও স্বাস্থ্যোজ্জল ত্বক, চুল ও নখের জন্য ভিটামিন এ এবং সি গুরুত্বপূর্ণ। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা শক্তিশালী করতেও লাল রংয়ের খাবারের ভ‚মিকা রয়েছে।
ইলেক্ট্রোলাইটস: শরীরের কোষগুলো যাতে তাদের কাজ সঠিকভাবে করতে পারে সেজন্য চাই ‘ইলেক্ট্রোলাইটস’। পটাশিয়াম, সোডিয়াম ও ম্যাগনেসিয়াম হল এমন কিছু ‘ইলেক্ট্রোলাইটস’ যা লাল রংয়ের ফল ও সবজিতে থাকে যথেষ্ট পরিমাণে। রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণেও এদের ভ‚মিকা রয়েছে।
ফ্লাভানয়েডস: শরীরে ‘অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট’ হিসেবে কাজ করে এই ‘ফ্লাভানয়েডস’, যা পাওয়া যায় গাঢ় রংয়ের খাবারে। লাল রংয়ের খাবারে থাকা ‘ফ্লাভানয়েড’-জাতীয় উপাদানটির নাম ‘কুয়েরসেটিন’, যা অ্যালার্জি ও হাঁপানির সমস্যা সমাধানে সহায়ক। ছবি: রয়টার্স।

Facebook Comments

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..