তবে কি নতুন মালিঙ্গার সৃষ্টি, নিলেন ৭ রানে ৬ উইকেট

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

ক্রিকেট ক্যারিয়ারের প্রায় শেষ দিকে পৌঁছে গিয়েছেন শ্রীলঙ্কার কিংবদন্তি পেসার লাসিথ মালিঙ্গা। বয়সের কাঁটা এরই মাঝে পেরিয়েছে ৩৬’র ঘর। আর হয়তো অল্প কিছুদিন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে দেখা যাবে বাহারি ঝাঁকড়া চুলের এ গতিময় পেসারকে। তবে মালিঙ্গা অবসর নেয়ার আগেই যেনো নতুন এক মালিঙ্গা পেয়ে গেছে শ্রীলঙ্কার।

এত আগেভাগেই মন্তব্য করা বেশ ঝুঁকিপূর্ণ। তবু শ্রীলঙ্কার স্কুল ক্রিকেটে খেলা ডানহাতি পেসার মাতিশা পাথিরানাকে অনেকেই বলতে শুরু করেছেন নতুন মালিঙ্গা হিসেবে। এর পেছনে অবশ্য কারণও রয়েছে জোরালো। মালিঙ্গার মতোই স্লিঙ্গিং অ্যাকশনে বোলিং করে থাকেন ১৭ বছরের মাতিশা। এছাড়া বল হাতেও দেখিয়েছেন অগ্রজের মতোই নৈপুণ্য।

গত সোমবার স্কুল ক্রিকেট প্রতিযোগিতায় ট্রিনিটি কলেজের হয়ে খেলতে নেমেছিলেন মাতিশা। আসগিরিয়া স্টেডিয়ামে তাদের প্রতিপক্ষ ছিলো সারভাটিয়াস কলেজ। যাদের সামনে রীতিমতো দুঃস্বপ্ন হয়েই হাজির হয়েছিলেন ডানহাতি পেসার মাতিশা।

সারভাটিয়াস কলেজের প্রথম ইনিংসে একাই ৬ উইকেট শিকার করেছেন মাতিশা, তাও মাত্র ৬ রান খরচায়। ট্রিনিটি কলেজের করা ২৫১ রানের জবাবে প্রথম ইনিংসে ১২১ রানে অলআউট হয় সারভাটিয়াস। মালিঙ্গার মতোই অ্যাকশনে বোলিং করা মাতিশা নিখুঁত ইয়র্কারে বোল্ড করেন দুই ব্যাটসম্যান, গতির তারতম্যে বোকা বানান আরও দুইজনকে। ঠিক যেমনটা করে থাকেন লাসিথ মালিঙ্গা।

মাতিশার এমন বোলিংয়ের পর জয় পেতে খুব একটা সমস্যা হয়নি ট্রিনিটি কলেজের। দুইদিনের ম্যাচে প্রথম ইনিংসে ১৩০ রানে পিছিয়ে থাকায় ফলোঅনে পড়ে সারভাটিয়াস। পরে দ্বিতীয় ইনিংসে তারা অলআউট হয় ১৬২ রানে। এবার কোনো উইকেট নিতে পারেননি মাতিশা। ট্রিনিটির সামনে লক্ষ্য দাঁড়ায় ৩৩ রানের, তিন উইকেট হারিয়ে জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় তারা।

Facebook Comments

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..