সংবাদ শিরোনাম :
নরসিংদীর সূর্যমুখী ফুলের বাগানে ভীড় করছে শত শত ফুলপ্রেমী দর্শনার্থী নরসিংদীতে ইটভাটায় মাটি সরবরাহে নদীপাড়ের ফসলি জমিগুলোতে চলছে মাটি কাটার মহোৎসব আত্রাইয়ের গ্রামগুলোতে কুমড়ো বড়ি তৈরির ধুম ১৭ জানুয়ারি পর্যন্ত ৭ লাখ ৪১ হাজার জনকে বুস্টার ডোজ দেওয়া হয়েছে; সংসদে প্রধানমন্ত্রী নরসিংদীতে ৯2–ব্যাচ বন্ধুদের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত রায়পুরা উপজেলা প্রতিবন্ধী ফোরামের উদ্যোগে শীত বস্ত্র বিতরণ রায়পুরায় প্রধানমন্ত্রীর আর্থিক অনুদানের চেক পেলেন দরিদ্র নেতা-কর্মীরা রায়পুরার পিরিজকান্দি শামসুল উলমু নূরানীর মাদ্রাসার ১ম ইসলামী সম্মেলন সাংবাদিক নজরুল ইসলামের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করে নরসিংদী জেলা রিপোর্টার্স ক্লাবের দোয়া ও মিলাদ করোনার ঊর্ধ্বমুখী সংক্রমণে আবারও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পাঠদান বন্ধের ঘোষণা

ছেলের চিকিৎসার জন্য আর্থিক সহায়তার আকুতি

  • আপডেট টাইম : সোমবার, ১১ অক্টোবর, ২০২১

শেরপুর প্রতিনিধি:

শেরপুর জেলার নালিতাবাড়ী উপজেলার নন্নী ইউনিয়নের আমলাতলী গ্রামের দিনমজুর সাইদুল ইসলামের একমাত্র সন্তান মোহাম্মদ আবু বক্কর ( ২৫ )। পঞ্চম শ্রেণীতে পড়ার সময় হঠাৎ করে বাম পা জটিল রোগে আক্রান্ত হয়ে পড়ে ৷ তখনকার সময় থেকে বিভিন্ন চিকিৎসকের শরণাপন্ন হয়েও কোন ভালো ফলাফল পাওয়া যায়নি ৷

এ ব্যাপারে আবু বক্কর এর পিতা সাইদুল ইসলামের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন , আমার ছেলে অনেক দিন যাবত অসুস্থ। আমি একজন দিনমজুর রোজ কাজ করে সংসার চালাতে হয়। পরিবারের সদস্য সংখ্যা ৬ জন ৷ আমার ছেলে যখন ক্লাস পঞ্চম শ্রেণীতে পড়ে তখন একদিন আমার সাথে তাকে মাঠে কাজ করতে নিয়ে যায় ৷ তার কয়েকদিন পর থেকে তার বাম পায়ে প্রচণ্ড ব্যথা শুরু হয়, সে ব্যথা থেকেই আজ আমার আদরের একমাত্র ছেলের বাম পা নষ্ট হতে থাকে ৷

চিকিৎসার বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন আমি আমার যা ছিল তা দিয়ে বাংলাদেশের বৃহত্তম ঢাকা ও ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজসহ বিভিন্ন হসপিটালে চিকিৎসা গ্রহণ করেছি কিন্তু দুঃখের বিষয় কোন ভালো ফলাফল পায়নি৷ চিকিৎসকরা বলেছেন এই জটিল রোগের চিকিৎসা বাংলাদেশে অসম্ভব ৷ তাই তাকে ভারতে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন ৷

সাইদুল ইসলাম আরও বলেন আমার ছেলেটার সুচিকিৎসার জন্য প্রয়োজনীয় সু চিকিৎসকের সন্ধান চাই৷ যদি কোনো ভাই বোন সুচিকিৎসা সন্ধান দেন তাহলে আমি খুবই উপকৃত হব ৷

তিনি আরো বলেন চিকিৎসার জন্য ভারতে নিয়ে যেতে অনেক টাকার প্রয়োজন যা আমার পক্ষে কষ্টসাধ্য অসম্ভব ৷ তাই যদি কেউ আমার পাশে এসে দাঁড়ান। বিশেষ করে শেরপুর জেলা প্রশাসকের সু দৃষ্টি কামনা করি এবং সকলের দোয়া চাই আল্লাহ যেন আমার ছেলেকে সুস্থ করে দেন৷

Facebook Comments

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..